সবুজ উপকূল ২০১৬, বাঁশখালীতে বেলাভূমি’র ক্ষুদে সম্পাদক নুসরাত তাসনীম

বেলাভূমি’র ক্ষুদে সম্পাদক নুসরাত তাসনীম

বাঁশখালী, চট্টগ্রাম, ৩০ সেপ্টেম্বর ২০১৬ : পূর্ব-উপকূলের জেলা চট্টগ্রামের বাঁশখালী বালিকা উচ্চ বিদালয় থেকে প্রকাশিত দেয়াল পত্রিকা বেলাভূমি’র প্রথম সংখ্যাটির সম্পাদকের দায়িত্ব পালন করেছে সপ্তম শ্রেণীর পড়ুয়া নুসরাত তাসনীম। ব্যতিক্রমী ধারার এই দেয়াল পত্রিকাটি ২৯ সেপ্টেম্বর ২০১৬ বৃহস্পতিবার প্রকাশিত হয়।

পত্রিকাটিতে চারপাশের নানান বিষয় নিয়ে পড়ুয়াদের লেখা প্রতিবেদন, রচনা ও হাতে অাঁকা ছবি স্থান পেয়েছে। কেউ লিখেছে নদীর ভাঙণ নিয়ে, কেউবা পরিবেশের অন্যান্য বিষয় নিয়ে। কারও লেখায় উঠে এসে সমুদ্র তীরবর্তীএলাকার মানুষের দু:খ-কষ্টের কথা। কেউ কেউ আবার উপকূলের সম্ভাবনা নিয়ে লিখেছে।

উপকূল জুড়ে ব্যতিক্রমীধারার দেয়াল পত্রিকা বেলাভূমি’র উদ্যোক্তা উপকূল বিষয়ক সৃজনশীল প্রতিষ্ঠান ‘উপকূল বাংলাদেশ’। উপকূলের পড়ুয়াদের পরিবেশ সচেতনতা বাড়ানো, সৃজনশীল মেধার বিকাশ, লেখালেখি চর্চার মাধ্যমে তথ্যে প্রবেশাধিকারসহ জীবন দক্ষতা বাড়ানো এই কর্মসূচির অন্যতম লক্ষ্য।বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের পরিবেশ সচেতনতা বাড়ানো আর সৃজনশীল মেধা বিকাশের লক্ষ্যে বেলাভূমি’র প্রকাশনা অব্যাহত রাখার দাবি পড়ুয়াদের। আর তাদের এ দাবি পূরণে সর্বাত্মক সহায়তা দেয়ার অঙ্গীকার করেছেন বিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ।

পত্রিকাটির সম্পাদকীয়তে নুসরাত তাসনীম লিখেছে, বাঁশখালী বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ে দেয়াল পত্রিকা বেলাভূমি’র প্রথম সংখ্যা বের হল। আমরা কয়েকজন বন্ধু মিলে এই দেয়ালিকা তৈরি করেছি। সেখানে আমার উপস্থিতি আমাকেসহ আমার বন্ধুদের অনাবিল আনন্দ দিয়েছে। এই দেয়ালিকা তৈরির ফলে আমরা অনেক জ্ঞান অর্জন করতে পেরেছি। যা আগামীতে আমাদের অনেক উপকারে আসবে। শুধুমাত্র আমরা নয়, আমাদের সহপাঠীসহ গোটা বিদ্যালয়ের ছাত্রছাত্রীরা এই দেয়ালিকা পড়ে জ্ঞান অর্জন করতে পারবে। এখানে আমরা যেসব বিষয় তুলে ধরেছি, তা আমাদের জীবন চলার পথে অত্যন্ত প্রয়োজন। এই বিষয়গুলো না জানা থাকলে আমরা অনেক সমস্যায় পড়তাম। এখন সে সমস্যা অনেকটাই উত্তরণ ঘটাতে পারবো বলে আশা রাখি।

নুসরাত তাসনীম

সম্পাদকীয়তে আরও উল্লেখ করা হয়, লেখালেখি ও দেয়াল পত্রিকা প্রকাশের মাধ্যমে আমরা যে অভিজ্ঞতা অর্জন করেছি, তা আমাদের জীবনে অনেক কাজে লাগবে। সে কারণে আমাদের এই চর্চা চালিয়ে যেতে হবে।

জীবনে প্রথম পত্রিকার সম্পাদক হতে পেরে আনন্দিত নুসরাত তাসনীম। অনুভূতি প্রকাশ করতে গিয়ে নুসরাত বলে, খুবই ভালো লেগেছে। এইটুকু জীবনে অন্যরকম অভিজ্ঞতা অর্জন করতে পারলাম। আমাদের বিদ্যালয়ে নিয়মিত দেয়ালিকা প্রকাশ করতে চাই।

//প্রতিবেদন/উপকূল বাংলাদেশ/৩০০৯২০১৬//

রফিকুল ইসলাম মন্টু

রফিকুল ইসলাম মন্টু

উপকূল অনুসন্ধানী সাংবাদিক। বাংলাদেশের সমগ্র উপকূলের ৭১০ কিলোমিটার জুড়ে তার পদচারণা। উপকূলীয় ১৬ জেলার প্রান্তিক জনপদ ঘুরে প্রতিবেদন লিখেন। পেশাগত কাজে স্বীকৃতি হিসাবে পেয়েছেন দেশীয় ও আন্তর্জাতিক অনেকগুলো পুরস্কার।
পাঠকের মন্তব্য